ঢাকা ০৫:৩৪ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ৩১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বিজ্ঞপ্তি ::
আমাদের নিউজপোর্টালে আপনাকে স্বাগতম... সারাদেশে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে...

লক্ষ্মীপুরে হত্যা করে মাটিচাপা

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৬:১৮:০৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৫ সেপ্টেম্বর ২০২৩ ৭৮ বার পড়া হয়েছে
লক্ষ্মীপুরে নিখোঁজের সাত দিন পর মাটিচাপা দেওয়া অবস্থায় মো. ইউনুস নামে এক এনজিও কর্মকর্তার লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল সকালে পৌর শহরের কালুহাজী সড়কের পাশ থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় জাবেদ হোসেন নামে একজনকে আটক করেছে পুলিশ।ইউনুছ গ্রামীণ বাংলা মাল্টিপারপাস কো-অপারেটিভ সোসাইটির কর্মকর্তা ও ফরিদপুর সদর উপজেলার কানাইপুর এলাকার আবদুর রশিদ মোল্লার ছেলে।

তিনি দীর্ঘদিন ধরে লক্ষ্মীপুর পৌর শহরের গণি হেড মাস্টার সড়কে পরিবার নিয়ে একটি ভবনে ভাড়া থাকতেন। আটক জাবেদ স্থানীয় কালুহাজী সড়ক এলাকার বাসিন্দা। পুলিশ জানায়,    ২৪ আগস্ট রাতে ইউনুছ বাসা থেকে মোটরসাইকেলযোগে বের হয়ে নিখোঁজ হন। নিখোঁজের পর দিন তার স্ত্রী সুলতানা জামান সদর মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন।
সেই অভিযোগের সূত্র ধরে জাবেদ হোসেনকে আটক করে পুলিশ। পরে তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী শহরের কালুহাজী সড়কের পাশে তার নিজ দোকানের পেছনে ইউনুছের লাশ মাটিচাপা দেওয়া অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. হাসান মোস্তফা স্বপন জানান, ঋণের টাকা নিয়ে বিরোধের জেরে ইউনুছকে হত্যা করে মাটিচাপা দিয়ে রাখা হয়। পরে তার মোটরসাইকেল ও মোবাইল পাশের পুকুরে ফেলে দেওয়া হয়।
লাশটি উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে।

 

নিউজটি শেয়ার করুন

আপলোডকারীর তথ্য

লক্ষ্মীপুরে হত্যা করে মাটিচাপা

আপডেট সময় : ০৬:১৮:০৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৫ সেপ্টেম্বর ২০২৩
লক্ষ্মীপুরে নিখোঁজের সাত দিন পর মাটিচাপা দেওয়া অবস্থায় মো. ইউনুস নামে এক এনজিও কর্মকর্তার লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল সকালে পৌর শহরের কালুহাজী সড়কের পাশ থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় জাবেদ হোসেন নামে একজনকে আটক করেছে পুলিশ।ইউনুছ গ্রামীণ বাংলা মাল্টিপারপাস কো-অপারেটিভ সোসাইটির কর্মকর্তা ও ফরিদপুর সদর উপজেলার কানাইপুর এলাকার আবদুর রশিদ মোল্লার ছেলে।

তিনি দীর্ঘদিন ধরে লক্ষ্মীপুর পৌর শহরের গণি হেড মাস্টার সড়কে পরিবার নিয়ে একটি ভবনে ভাড়া থাকতেন। আটক জাবেদ স্থানীয় কালুহাজী সড়ক এলাকার বাসিন্দা। পুলিশ জানায়,    ২৪ আগস্ট রাতে ইউনুছ বাসা থেকে মোটরসাইকেলযোগে বের হয়ে নিখোঁজ হন। নিখোঁজের পর দিন তার স্ত্রী সুলতানা জামান সদর মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন।
সেই অভিযোগের সূত্র ধরে জাবেদ হোসেনকে আটক করে পুলিশ। পরে তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী শহরের কালুহাজী সড়কের পাশে তার নিজ দোকানের পেছনে ইউনুছের লাশ মাটিচাপা দেওয়া অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. হাসান মোস্তফা স্বপন জানান, ঋণের টাকা নিয়ে বিরোধের জেরে ইউনুছকে হত্যা করে মাটিচাপা দিয়ে রাখা হয়। পরে তার মোটরসাইকেল ও মোবাইল পাশের পুকুরে ফেলে দেওয়া হয়।
লাশটি উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে।