ঢাকা ১০:০৮ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪, ৫ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
বিজ্ঞপ্তি ::
আমাদের নিউজপোর্টালে আপনাকে স্বাগতম... সারাদেশে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে...

জমজমের পানি নিয়ে সৌদি আরবের নির্দেশনা

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৮:৩৯:১৬ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩ ৭১ বার পড়া হয়েছে

সৌদি আরবে হজ ও ওমরাহ করতে যাওয়া মানুষদের জন্য নির্ধারিত পাত্র থেকে জমজমের পানি সংগ্রহ ও পান করার বিষয়ে দেশটির সরকার কিছু নির্দেশনা জারি করেছে। সৌদি আরবের দুই পবিত্রতম স্থান মক্কা ও মদিনায় এ নির্দেশনাগুলো প্রযোজ্য হবে।

মক্কার গ্র্যান্ড মসজিদ ও মদিনার মসজিদে নববিতে জীবাণুমুক্ত পাত্রে মুসলিমদের জন্য জমজমের পানি রাখা হয়। সৌদি আরবের হজ ও ওমরাহ–সংক্রান্ত মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুযায়ী, মুসলিমদের ধাক্কাধাক্কি এড়িয়ে চলা এবং পরোপকারী মনোভাব পোষণের পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। পবিত্র এ পানি সংগ্রহের ক্ষেত্রে বয়স্করা অগ্রাধিকার পাবেন। এ ছাড়া নির্ধারিত জায়গায় পানি পানের পর কাপগুলো যথাস্থানে রাখতে বলা হয়েছে। জায়গাটিকে পরিষ্কার রাখার স্বার্থে মেঝেতে পানি ফেলা থেকে বিরত থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

হজ শেষ হওয়ার পর সৌদি আরবে ওমরাহর মৌসুম শুরু হয়েছে। বিশ্বের মুসলিমদের মধ্যে যাঁরা শারীরিক কিংবা আর্থিক কারণে হজ করতে পারেন না, তাঁরা গ্র্যান্ড মসজিদে ওমরাহ করে থাকেন। বিশেষ করে বিদেশি হজ ও ওমরাহ যাত্রীদের কাছে জমজমের পানি জনপ্রিয়। দেশে ফেরার পর স্বজনদের উপহার হিসেবে দিতে তাঁরা জমজমের পানি কিনে থাকেন। ওমরাহ শেষ হওয়ার পর দেশে ফেরার আগে মুসলিমরা নুসুক অ্যাপের মাধ্যমে জমজমের পানির বোতল বুকিং দিয়ে থাকেন।

সাম্প্রতিক মাসগুলোয় বিদেশি মুসলিমদের জন্য ওমরাহ করার ক্ষেত্রে সৌদি আরব বেশ কিছু নতুন সুযোগ-সুবিধা যুক্ত করেছে। বিভিন্ন ধরনের ভিসার আওতায় সৌদি আরবে যাওয়া মুসলিমদের ওমরাহ করার সুযোগ দিচ্ছে দেশটির সরকার। আগে থেকে অনুমতি নেওয়া থাকলে তাঁরা মসজিদে নববিতে আল রাওদা আল শরিফায় যেতে পারেন। এ ছাড়া ওমরাহ ভিসার মেয়াদ ৩০ দিন থেকে বাড়িয়ে ৯০ দিন করা হয়েছে। ওমরাহ ভিসাধারী ব্যক্তিরা যেকোনো স্থলপথ, আকাশপথ কিংবা সমুদ্রপথে সৌদি আরবে ঢুকতে পারেন। যেকোনো বিমানবন্দর থেকেই সৌদি আরব ছাড়তে পারেন তাঁরা। নারীদের ওমরাহ করার ক্ষেত্রে পুরুষ অভিভাবককে সঙ্গে নেওয়ার বাধ্যবাধকতা বাতিল করা হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপলোডকারীর তথ্য

ডিবির হারুন বলেন, রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে কিশোর গ্যাং সদস্যদের সঙ্গে জড়িত ৩৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছৈ। তাদের গ্রেফতার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের ওয়ারী ও গুলশান বিভাগ। গ্রেফতারদের মধ্যে বেশিরভাগ কিশোর গ্যাং সদস্যের বিরুদ্ধে থানায় মামলা রয়েছে। তিনি জানান, গ্রেফতাররা বাড্ডা, ভাটারা, তুরাগ, তিনশ ফিট ও যাত্রাবাড়ীসহ রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় টার্গেট করা ব্যক্তিদের ইভটিজিং বা কোনো সময় ধাক্কা দেওয়ার ছলে উত্ত্যক্ত করত। এরপর তারা ঘেরাও করে ভুক্তভোগীদের কাছ থেকে মোবাইলফোন এবং নারীদের কাছ থেকে সোনার অলঙ্কার ছিনিয়ে নিত। এ ছাড়া তারা ছিনতাই, চাঁদাবাজি ও চুরির সঙ্গে জড়িত। এসব গ্যাং সদস্য মাদক কারবারের সঙ্গেও জড়িত। ডিবি হারুন জানান, গ্রেফতার কিশোর গ্যাং সদস্যদের জিজ্ঞাসাবাদে কিছু কথিত বড় ভাইয়ের নাম পাওয়া গেছে। বড় ভাইদেরও গ্রেফতার করা হবে। কিশোর গ্যাং সদস্যদের বিরুদ্ধে ডিবির প্রতিটি টিম কাজ করছে।

জমজমের পানি নিয়ে সৌদি আরবের নির্দেশনা

আপডেট সময় : ০৮:৩৯:১৬ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩

সৌদি আরবে হজ ও ওমরাহ করতে যাওয়া মানুষদের জন্য নির্ধারিত পাত্র থেকে জমজমের পানি সংগ্রহ ও পান করার বিষয়ে দেশটির সরকার কিছু নির্দেশনা জারি করেছে। সৌদি আরবের দুই পবিত্রতম স্থান মক্কা ও মদিনায় এ নির্দেশনাগুলো প্রযোজ্য হবে।

মক্কার গ্র্যান্ড মসজিদ ও মদিনার মসজিদে নববিতে জীবাণুমুক্ত পাত্রে মুসলিমদের জন্য জমজমের পানি রাখা হয়। সৌদি আরবের হজ ও ওমরাহ–সংক্রান্ত মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুযায়ী, মুসলিমদের ধাক্কাধাক্কি এড়িয়ে চলা এবং পরোপকারী মনোভাব পোষণের পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। পবিত্র এ পানি সংগ্রহের ক্ষেত্রে বয়স্করা অগ্রাধিকার পাবেন। এ ছাড়া নির্ধারিত জায়গায় পানি পানের পর কাপগুলো যথাস্থানে রাখতে বলা হয়েছে। জায়গাটিকে পরিষ্কার রাখার স্বার্থে মেঝেতে পানি ফেলা থেকে বিরত থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

হজ শেষ হওয়ার পর সৌদি আরবে ওমরাহর মৌসুম শুরু হয়েছে। বিশ্বের মুসলিমদের মধ্যে যাঁরা শারীরিক কিংবা আর্থিক কারণে হজ করতে পারেন না, তাঁরা গ্র্যান্ড মসজিদে ওমরাহ করে থাকেন। বিশেষ করে বিদেশি হজ ও ওমরাহ যাত্রীদের কাছে জমজমের পানি জনপ্রিয়। দেশে ফেরার পর স্বজনদের উপহার হিসেবে দিতে তাঁরা জমজমের পানি কিনে থাকেন। ওমরাহ শেষ হওয়ার পর দেশে ফেরার আগে মুসলিমরা নুসুক অ্যাপের মাধ্যমে জমজমের পানির বোতল বুকিং দিয়ে থাকেন।

সাম্প্রতিক মাসগুলোয় বিদেশি মুসলিমদের জন্য ওমরাহ করার ক্ষেত্রে সৌদি আরব বেশ কিছু নতুন সুযোগ-সুবিধা যুক্ত করেছে। বিভিন্ন ধরনের ভিসার আওতায় সৌদি আরবে যাওয়া মুসলিমদের ওমরাহ করার সুযোগ দিচ্ছে দেশটির সরকার। আগে থেকে অনুমতি নেওয়া থাকলে তাঁরা মসজিদে নববিতে আল রাওদা আল শরিফায় যেতে পারেন। এ ছাড়া ওমরাহ ভিসার মেয়াদ ৩০ দিন থেকে বাড়িয়ে ৯০ দিন করা হয়েছে। ওমরাহ ভিসাধারী ব্যক্তিরা যেকোনো স্থলপথ, আকাশপথ কিংবা সমুদ্রপথে সৌদি আরবে ঢুকতে পারেন। যেকোনো বিমানবন্দর থেকেই সৌদি আরব ছাড়তে পারেন তাঁরা। নারীদের ওমরাহ করার ক্ষেত্রে পুরুষ অভিভাবককে সঙ্গে নেওয়ার বাধ্যবাধকতা বাতিল করা হয়েছে।